khelaprotidin.com 2022 10 16T014513.114

হুট করে সোশ্যাল মিডিয়ায় বিরাট কোহলিকে গ্রেফতার করার দাবি জোরদার!

ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রাক্তন অধিনায়কের জনপ্রিয়তা নিয়ে প্রশ্ন তোলার জায়গা নেই। একই সময়ে, সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁর এবং বর্তমান অধিনায়ক রোহিত শর্মার ফ্যানদের মধ্যে প্রায়শই ঝগড়া হয়। দুই খেলোয়াড়ই নিজেদের জায়গায় সেরা। সম্প্রতি অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে লড়াই করতে দেখা যায়। কিন্তু হঠাৎ কি হল যে শনিবার টুইটারে #ArrestKohli ট্রেন্ড করতে শুরু করে?

jwppfOn
jwppfOn
jwppfOn
jwppfOn
jwppfOn

প্রশ্ন হল, বিরাট কোহলিকে গ্রেপ্তারের জন্য সোশ্যাল মিডিয়ায় দাবি করা হচ্ছে কেন? এটা অবশ্যই উল্লেখ্য যে বিরাট কোহলি ও রোহিত শর্মার দুই সমর্থকের মধ্যে এই বিবাদ বাঁধে। লড়াই এতটাই বেড়ে যায় যে একজন আরেকজনকে হত্যা করে। ক্রিকেট স্টেডিয়ামে প্রতিদ্বন্দ্বিতা প্রায়শই দেখা যায়। তবে এক ফ্যানকে অন্য ফ্যানের খুন করে ফেলাটা আগে কখনও শোনা যায়নি।

পুরো ঘটনাটা কী?

jwppfOn
jwppfOn
jwppfOn
jwppfOn
jwppfOn

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসের একটি প্রতিবেদন অনুযায়ী এই ঘটনাটি তামিলনাড়ুর আরিয়ালুর জেলায় ঘটে। সেখানে ২১ বছর বয়সী এক ব্যক্তি মত্ত অবস্থায় তার নিজের বন্ধুকে ব্যাট দিয়ে হত্যা করে। কেলাপালুর পুলিশের কাছ থেকে প্রাপ্ত তথ্য অনুসারে, রোহিত শর্মার ভক্ত ভিগনেশ এবং বিরাট কোহলির ভক্ত ধর্মরাজের মধ্যে বিবাদ হয়। মাল্লুরের কাছে সিডকো ইন্ডাস্ট্রিয়াল এস্টেটের কাছে খোলা জায়গায় আড্ডা দিচ্ছিলেন দুজনে। এই সময় ক্রিকেটের কোন একটি বিষয় নিয়ে দুজনের মধ্যে তর্কাতর্কি হয়।

ভিগনেশ বিরাট কোহলি এবং আরসিবিকে নিয়ে মজা করেন এবং ধর্মরাজ এটি সহ্য করতে না পেরে প্রথমে বোতল দিয়ে তাকে আক্রমণ করেন এবং তারপরে ক্রিকেট ব্যাট দিয়ে মাথায় আঘাত করেন। এই ঘটনায় ভিগনেশের মৃত্যু হয়। এই ঘটনার ঠিক পরেই, #RIPVignesh #ArrestKohli-এর মতো হ্যাশট্যাগগুলি সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্রেন্ড করতে শুরু করে। নেটিজেনরা সোশ্যাল মিডিয়ায় বিরাট কোহলিকে ক্ষমা চাওয়ার দাবি করতে শুরু করে এবং তা না করার জন্য তাকে গ্রেপ্তার করার ও দাবি জানায়।

দেখে নিন সোশ্যাল মিডিয়ার ছবি:

https://twitter.com/its_monk45/status/1580963457742307328?