শ্রীলঙ্কা ও ভারতের সিরিজ শুরুর আগেই বিতর্ক

দ্বিতীয় সারির দুর্বল’ ভারতীয় দল শ্রীলঙ্কায় পাঠানো নিয়ে তোপ দেগেছিলেন শ্রীলঙ্কান প্রাক্তন তারকা অর্জুনা রণতুঙ্গা। চরম ‘অপমান’ বলে দাগিয়ে দিয়েছিলেন দেশের ক্রিকেটকে। তবে বাস্তবেই এবার ভারতের বিরুদ্ধে দ্বিতীয় সারির দল নামাতে চলেছে শ্রীলঙ্কা।

পাল্টা প্রতিশোধ কিংবা অন্য কোনো কারণ নয়। আসলে শ্রীলঙ্কান বোর্ডের সঙ্গে ক্রিকেটারদের চরম ডামাডোল শুরু হয়েছে। মাঠে ধারাবাহিকভাবে পারফর্ম করতে ব্যর্থ শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট দল। অন্যদিকে, বোর্ডের সঙ্গে চুক্তি নিয়ে জাতীয় দলের তারকাদের চুক্তি নিয়ে বিভ্রাট অব্যাহত। শিখর ধাওয়ানের নেতৃত্বে টিম ইন্ডিয়ার সীমিত ওভারের স্কোয়াড শ্রীলঙ্কায় গিয়ে অনুশীলন শুরু করে দিলেও,

এখনও বিপক্ষে সিরিজের স্কোয়াডই জানায়নি শ্রীলঙ্কান বোর্ড। স্থানীয় প্ৰচারমাধ্যম সূত্রে জানা গিয়েছে, ইংল্যান্ডে সীমিত ওভারের সিরিজ খেলে শীঘ্রই শ্রীলঙ্কা দেশে ফিরবে। আপাতত সেই অপেক্ষাতেই রয়েছে শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট বোর্ড। বোর্ডের বার্ষিক চুক্তিতে এখনো শ্রীলঙ্কান ক্রিকেটাররা সই করেননি। কুশল পেরেরার নেতৃত্বাধীন জাতীয় দলের ক্রিকেটাররা যদি বোর্ডের চুক্তিতে সই না করে তাহলে ভারতের বিরুদ্ধে হয়ত দ্বিতীয় সারির দলই নামাতে পারে দ্বীপরাষ্ট্রের ক্রিকেট বোর্ড।

শ্রীলঙ্কান সংবাদপত্র ডেইলি এফটি-র প্রতিবেদন অনুযায়ী, শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান নির্বাচক প্রমোদয়া বিক্রমসিংহে জানিয়েছেন, যে ক্রিকেটাররা বোর্ডের চুক্তিতে সই করবেন না, তাদের ভারত সিরিজে রাখা হবে না। জানা গিয়েছে শ্রীলঙ্কান বোর্ড ৩৯ জনের ক্রিকেটারদের একটি পুল তৈরি করেছে। প্রথম সারির দল না খেললে, প্রয়োজন পড়লে সেই পুলের বাকি ক্রিকেটারদের নিয়ে দ্বিতীয় সারির স্কোয়াড গড়া হবে।

বিক্রমসিংহে জানিয়েছেন, “পুলের ক্রিকেটাররা অনুশীলনের মধ্যেই রয়েছে। ম্যাচও খেলছে। ভারতের বিরুদ্ধে ওঁরা ভালোভাবেই নির্বাচনী ভাবনায় রয়েছে। আমরা এখনো ভারতের বিরূদ্ধে স্কোয়াড ঘোষণা করিনি। রোববার শ্রীলঙ্কা ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে তৃতীয় এবং শেষ ওডিআই ম্যাচ খেলার পরে স্কোয়াড নিয়ে আলোচনা হবে।” ইংল্যান্ড সফরের আগেই শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট বোর্ডের প্রস্তাবিত চুক্তিতে সই করার কথা ছিল কুশল পেরেরাদের।

তবে চুক্তিতে প্রাপ্য টাকায় সন্তুষ্ট নয় ক্রিকেটাররা। যে কারণে চূড়ান্ত চুক্তিপত্রে সই না করে ক্রিকেটাররা স্বেচ্ছা ঘোষণাপত্রে সই করে ইংল্যান্ডে পাড়ি দেন। ইংল্যান্ড সফর চলাকালীনই চুক্তির সমাধান হয়ে যাবে বলে আশা করা হয়েছিল। তবে তা নিয়ে এখনো টালবাহানা হয়েই চলেছে। ক্রিকেটাররা ইংল্যান্ড থেকে ফিরেও চুক্তিতে সই করবেন এমন কোনো ইঙ্গিত শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট বোর্ড পায়নি।

শ্রীলঙ্কান বোর্ড কিছুদিন আগেই ঘোষণা করে দিয়েছিল, তাদের ৩৯ জনের পুল রয়েছে- সিনিয়র, এ টিম ছাড়াও যেখানে দেশের উঠতি প্রতিশ্রুতিমান ক্রিকেটারদের রাখা হয়েছিল। সেই ক্রিকেটাররাই ডাম্বুলা এবং কলম্বোয় আলাদা আলাদা দুটি গ্রুপে ভাগ হয়ে অনুশীলন চালিয়ে যাচ্ছে। সিনিয়র ক্রিকেটাররা একান্তই সই না করলে তাঁদেরকেই দেখা যাবে ভারতের বিরুদ্ধে। চলতি মাসের ১৩ তারিখ থেকেই সিরিজ শুরু হচ্ছে। লঙ্কানদের বিপক্ষে ভারত তিনটে করে ওডিআই এবং টি২০ খেলবে।

You May Also Like

About the Author: