পুরোপুরি ১ কোটি নয় আইপিএল থেকে যত টাকা পাচ্ছে সাকিব মুস্তাফিজ

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লীগ বা আইপিএলের ১৪তম আসর করোনার মধ্যেই চলছিল ভালোভাবে। দারুন বিধিনিষেধের মধ্যে দিয়েই চালিয়ে যাচ্ছিল নিজেদের আইপিএল। কিন্তু বাধ বসে যখন দিল্লি তে তারা খেলতে যায় ও বরুন চক্রবর্তী করোনা পজিটিভ হয়! সেদিন বরুনের পাশাপাশি আরও দুই ক্রিকেটার ও কিছু স্টাফ করোনা পজিটিভ হলে শেষ পর্যন্ত বাধ্য হয়ে বন্ধ করতে হয় আইপিএল।

প্রাথমিক পর্যায়ে আইপিএল কোথায় হবে, কবে হবে তা নিয়ে নানান প্রশ্ন থাকলেও শেষ পর্যন্ত তারা সিদ্ধান্ত নেয় আবারও দুবাইতেই অনুষ্ঠিত হবে আইপিএলের বাকি অংশ।তবে যত ঝামেলা এখানেই। আইপিএলের সময়ে বর্তমানে অন্যান্য দেশ সিরিজ না রাখলেও সেপ্টেম্বর-অক্টোবরে প্রায় সব দলেরই আন্তর্জাতিক সিরিজ থাকছে।

ইংল্যান্ড অ্যান্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড সরাসরি বলে দিয়েছে আইপিএলে কোনো ক্রিকেটারকে দেয়া সম্ভব না তাদের । আন্তর্জাতিক সূচি ও আসন্ন টি-২০ বিশ্বকাপকে সামনে রেখে ক্রিকেটারদের বিশ্রাম দিতেই এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইসিবি।

শুধু ইংল্যান্ডই না, তখন নিজেদের ক্রিকেটার না দেয়ার কথা জানিয়েছে প্রায় সব দলই। তাই এবার বেতন কাটার পথে হাটছে বিসিসিআই।

বিসিসিআই সূত্রের বরাত দিয়ে ইনসাইড স্পোর্টসে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিক অর্থেক কর্তন করার ব্যাপারটি। ওই সূত্রটির ভাষ্য, ‘’হ্যাঁ, এটা সত্যি। যদি কোন কারণে তারা (বিদেশি ক্রিকেটার) সংযুক্ত আরব আমিরাতে আইপিএল না খেলতে পারে তাহলে ফ্র্যাঞ্চাইজিরা তাদের (ক্রিকেটারদের) পারিশ্রমিক কর্তন করবে। তারা (ফ্র্যাঞ্চাইজি) তাদেরকে (ক্রিকেটারদের) প্রো রাটা ভিত্তিতে বেতন দেবে।‘’

যদি বিদেশী ক্রিকেটারদের পারিশ্রমিক অর্ধেক কেটে রেখে দেয়া হয় তাহলে সাকিব আল হাসানকে ৩ কোটি ২০ লক্ষ রুপি দিয়ে কেনা হলেও তিনি পাচ্ছেন ১ কোটি ৬০ লক্ষ রুপি। এছাড়া রাজস্থান রয়্যালসে খেলা মুস্তাফিজুর রহমানকে ১ কোটি রুপিতে কিনে নিলেও তিনি পাচ্ছেন ৫০ লক্ষ রুপি।

উল্লেখ্য সব বিদেশী ক্রিকেটার কে তারা অর্ধেক পারিশ্রমিক দিচ্ছে না। যারা মূলত আইপিএলের বাকি অংশে অংশ নিবে না, তাদের জন্য অর্ধেকের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

সংশ্লিষ্ট খবর

Leave a Comment