এইমাত্র পাওয়াঃ এখন থেকে ১১ নম্বরে ব্যাট করবেন সাকিব!

সাকিব আল হাসান বাংলাদেশের একজন তারকা ক্রিকেটার। তিনি দলের স্বার্থে নিজেকে অনেকটা প্রস্তত করে নিচ্ছে এবারের ঢাকা প্রিমিয়ার লীগে। জাতীয় দলে সাকিব আল হাসানের ব্যাটিং পজিশন নিয়ে আলোচনা-গবেষণা-বিতর্ক চলে বিস্তর। এবার কৌতূহলের পালা ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের দলে তার পজিশন নিয়ে।

মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের হয়ে এবার কোন পজিশনে ব্যাট করবেন, সেটি অবশ্য এখনই খোলাসা করলেন না ঐতিহ্যবাহী দলটির অধিনায়কের দায়িত্ব পাওয়া এই অলরাউন্ডার। তবে জানিয়ে দিলেন, আপত্তি নেই কোনো পজিশনে খেলতেই। জাতীয় দলে সীমিত ওভারের ক্রিকেটে আপাতত তিনি ব্যাট করছেন তিন নম্বরে।

এ বিষয়ে সাকিব বলেন, “দেখা যাক, দলের সবার সঙ্গে আলাপ করে দলের জন্য যেটা ভালো হয়… আমার কাছে সবসময় একটা ব্যাপার গুরুত্বপূর্ণ মনে হয়, দলের জন্য যেটা করা যায় ও যেটা করলে দলের ভালো হয়, সেটাই করা। তো সেটার জন্য তিন-চার-পাঁচ-ছয় বা ১১ নম্বর হলেও সমস্যা নেই।”

সাকিব এবার ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে খেলবেন ৫ বছর পর। সবশেষ ২০১৬ সালে খেলেছিলেন তিনি আবাহনী লিমিটেডের হয়ে। এবার খেলবেন আবাহনীর চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী মোহামেডানের হয়ে। দায়িত্ব পেয়েছেন নেতৃত্বের। লিগে নিজেদের লক্ষ্যের কথা জানালেন মোহামেডান অধিনায়ক।

“ লক্ষ্য তো অবশ্যই থাকবে যেন সবার থেকে ওপরে থাকতে পারি আমরা। তবে যেহেতু অনেক লম্বা লিগ, এখানে ম্যাচ ধরে এগোনোই ভালো। প্রথম লক্ষ্য হওয়া উচিত প্রথম ম্যাচ জয়। যদি ভালোভাবে শুরু করতে পারি… যেহেতু ব্যাক টু ব্যাক ম্যাচ, টি-টোয়েন্টিতে মোমেন্টাম খুব গুরুত্বপূর্ণ।

চেষ্টা থাকবে যেন প্রথম ম্যাচ থেকে মোমেন্টাম পেতে পারি এবং ধরে রাখতে পারি।” মোহামেডানের ঐতিহ্য দারুণ সমৃদ্ধ হলেও সাফল্যের দিক থেকে দলটি এখন অতীতের কঙ্কাল। ক্রিকেট তো বটেই, দেশের ক্রীড়াঙ্গনের সব খেলায়ই তাদের দুর্দশা চলছে অনেক দিন ধরে। তবে সম্প্রতি ক্লাবের নতুন কমিটি দায়িত্ব নিয়েছে।

এবার চিত্র বদলানোর আশা সাকিবের কণ্ঠে। “ অবশ্যই মোহামেডানের মতো ক্লাবের জন্য এটা হতাশার ব্যাপার। তবে আমি নিশ্চিত, নতুন কমিটিতে যারা এসেছেন, তারা সাধ্যমতো চেষ্টা করবেন এবছর থেকে যেন মোহামেডান ক্লাব এমন হতে পারে যে প্রতি বছর ট্রফি আনবে। শুধু ক্রিকেটে নয়, অন্য খেলায়ও।”

সংশ্লিষ্ট খবর

Leave a Comment