যে কারনে খেলোয়াড়ি জীবনের ইতি টানলেন ইংলিশ পেসার

কাঁধের চোটের কারণে সবধরণের ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দিলেন ইংলিশ বাঁহাতি পেসার হ্যারি গার্নি।
নিজের অবসরের ঘোষণা দিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তিনি লিখেন, ‘আমার বিদায় বলার সময়ে এসে গেছে। সম্প্রতি আমার কাঁধের চোট থেকে সেরে উঠার সর্বাত্মক প্রচেষ্টার পরও আমি সত্যি হতাশ যে এটার কারণেই খেলোয়াড়ি ক্যারিয়ারের ইতি টানতে হচ্ছে।’

৩৪ বছর বয়সী গার্নি ২০১৯ মৌসুমে আইপিএলে অংশ নেন কোলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে। ৮ ম্যাচে শিকার করে ৭ উইকেট।
গার্নির বিদায়ের খবর জানিয়ে টুইট করেছে কোলকাতা নাইট রাইডার্সও, ‘হ্যারি গার্নি সব ধরণের ক্রিকেট থেকে অবসর নিয়েছে। আমরা তার অবসর পরবর্তী জীবনের জন্য শুভ কামনা জানাই। আর তাকে ধন্যবাদ দিতে চাই আমাদের সাথে সব আনন্দের মুহূর্তের জন্য। বিশেষ করে ২০১৯ সালে জয়পুরে রাজস্থান রয়্যালসের বিপক্ষে নাতকীয় ম্যাচে জাদুকরী অভিষেকের জন্য।’

২০১৪ সালে ইংল্যান্ডের জার্সিতে অভিষেক হলেও ঐ বছরই সর্বশেষ আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেন। নামের পাশে আছে ১০ ওয়ানডে ও ২ আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি, উইকেট যথাক্রমে ১১ ও ২ টি।

আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ার লম্বা নাহলেও নটিংহামে জন্ম নেয়া গার্নি ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক টি-টোয়েন্টিতে ছিলেন সরব। আইপিএল ছাড়াও খেলার অভিজ্ঞতা আছে ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগ (সিপিএল), বিগ ব্যাশ লিগ (বিবিএল)। ১৫৬ স্বীকৃত টি-টোয়েন্টিতে উইকেট শিকার ১৯০ টি।

বার্বাডোস ট্রাইডেন্টসের হয়ে ২০১৯ সিপিএলের শিরোপা জেতেন হ্যারি গার্নি, সেদফায় গার্নির সতীর্থ ছিলেন সাকিব আল হাসান।
প্রথম শ্রেণি ও লিস্ট ‘এ’ ক্যারিয়ারও সমৃদ্ধ এই পেসারের। ১০৩ টি প্রথম শ্রেণির ম্যাচে তুলে নেন ৩১০ উইকেট। ৯৩ লিস্ট ‘এ’ ম্যাচে উইকেট সংখ্যা যেখানে ১১৪ টি।

সংশ্লিষ্ট খবর

Leave a Comment