বাংলাদেশ দলের অনুশীলন শুরু

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে আসন্ন তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজকে সামনে রেখে সাকিব আল হাসান ও মুস্তাফিজুর রহমানকে ছাড়াই আজ থেকে অনুশীলন শুরু করেছে বাংলাদেশ দল। এ ওয়ানডে সিরিজটি আইসিসি সুপার লিগের অর্ন্তভুক্ত।

বাংলাদেশ দলের অনুশীলন শুরু হয় মূলত ২ মে থেকেই। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজে যারা অংশ নিয়েছিলেন তারা অনুশীলনে যোগ দিতে পারেননি। তবে মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ, আফিফ হোসাইন, নাঈম শেখ, সৌম্য সরকার, মোসাদ্দেক হোসাইন, ইমরুল কায়েস এবং অন্যান্য যারা টেস্ট স্কোয়াডে ছিলেন না তারাই অনুশীলনে অংশ নিয়েছিলেন এ সময়।

এই কয়টা দিন হোম কোয়ারেন্টাইনে ছিল শ্রীলঙ্কা থেকে ফিরে আসা খেলোয়াড়রা। যদিও তাদের ১৪ দিনের জন্য পৃথকীকরণের কথা ছিলো। তবে স্বাস্থ্য বিভাগ তা শিথিল করেছে। কিন্তু আইপিএল স্থগিত হওয়াার পর চার্টার্ড ফ্লাইটে ভারত থেকে আসা সাকিব ও মুস্তাফিজের ক্ষেত্রে বিষয়টি শিথিল হয়নি। সরকারি নির্দেশনা অনুসারে, ভারত এবং দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে আগত লোকদের ১৪ দিনের জন্য প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে।

এ বিষয়ে প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু বলেন, ‘শুক্রবার থেকে পুরো দল অনুশীলন শুরু করবে। এই পর্যায়ে, তিন দিনের জন্য অনুশীলন করবে তারা এবং ঈদুল ফিতরের জন্য ১০ থেকে ১৭ মে ছুটি থাকবে।’

ঈদের পর আগামী ১৭ মে করোনা পরীক্ষা হবে খেলোয়াড়দের। ঐ পরীক্ষার রিপোর্ট নেগেটিভ আসলেই, পুন:রায় অনুশীলনে যোগ দিতে পারবে তারা, জানান নান্নু।

বাংলাদেশের বিপক্ষে সিরিজ খেলতে আগামী ১৬ মে ঢাকায় আসবে শ্রীলঙ্কা। ১৭ ও ১৮ মে কোয়ারেন্টাইনে থাকবে সফরকারীরা। তারপর ১৯ ও ২০ মে দুইদিন অনুশীলন করে ২১ মে একটা প্রস্তুতিমূলক ম্যাচ খেলবে শ্রীলঙ্কা। পরের দিন অনুশীলন করে ২৩ মে প্রথম ওয়ানডেতে মুখোমুখি হবে দুই দল।

সিরিজের দ্বিতীয় ও তৃতীয় ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে আগামী ২৫ ও ২৮ মে। দিবারাত্রির তিনটি ম্যাচই হবে হোম অব ক্রিকেট মিরপুরে।

সংশ্লিষ্ট খবর

Leave a Comment