20230913 132813

বাংলাদেশের বিপক্ষে ভারতের খেলা নিয়ে টাইগারদের অপমান করবে ভারত

টানা দুই ম্যাচ খেলে ক্লান্ত ভারতীয় ব্যাটাররা। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ম্যাচের আগে বিষয়টি বিরাট কোহলির কণ্ঠেই ফুটে ওঠে। ইতোমধ্যে এশিয়া কাপের ফাইনাল নিশ্চিত করে ফেলেছে তারা। বিপরীতে টুর্নামেন্ট থেকে বিদায় নিশ্চিত হয়েছে বাংলাদেশের। সে কারণে ম্যাচটি এখন কেবলই নিয়মরক্ষার। তাই টাইগারদের বিপক্ষে ভারত তারকা ক্রিকেটারদের বিশ্রামে রাখতে পারে। এমনই আভাস দিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম।

দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস বলছে, দরজায় কড়া নাড়ছে বিশ্বকাপ। তাই তো টিম ম্যানেজমেন্ট একাধিক তারকা ক্রিকেটারকে বিশ্রামে রাখার কথা ভাবছে। এর মাধ্যমে আগের ম্যাচগুলোর একাদশে জায়গা না পাওয়া ক্রিকেটাররাও খেলার সুযোগ পাবেন। ফলে তাদের দেখা মিলতে পারে বাংলাদেশের বিপক্ষে আসন্ন ম্যাচে।

এখন পর্যন্ত কোহলি ও জসপ্রীত বুমরাহকে বিশ্রামে রাখা হতে পারে বলে শোনা যাচ্ছে। এছাড়া লোকেশ রাহুল, হার্দিক পান্ডিয়াও থাকতে পারেন বিশ্রামে। কিছুদিন আগেই দীর্ঘ সময়ের ইনজুরি থেকে ফিরেছেন বুমরাহ। ইতোমধ্যে দলের নিজের প্রভাবও রাখতে শুরু করেছেন। অন্যদিকে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী পাকিস্তানের বিপক্ষে ১২২ রানের অনবদ্য এক ইনিংস খেলেছিলেন কোহলি। তার সঙ্গে লোকেশ রাহুলও পান ম্যাজিক ফিগারের দেখা। ফলে পাকিস্তানকে ৩৫৬ রানের যৌথ সর্বোচ্চ রান বেধে দেয় ভারত। পরে অবশ্য পাকিস্তান মাত্র ১২৮ রানেই গুটিয়ে যায়।

ওই ম্যাচের পরই ধারাভাষ্যকার সঞ্জয় মাঞ্জরেকারের সঙ্গে এক অনুষ্ঠানে কোহলি বলেছিলেন, ‌‘আমি অনুরোধ করব আপনি যাতে সাক্ষাৎকারটা খুব ছোট করেন। আমি প্রচণ্ড ক্লান্ত। মাঠে প্রচুর দৌড়ে রান নিয়েছি। প্রত্যেক সময়েই মনে হচ্ছিল, কাল আবার দুপুর ৩টায় আমাদের মাঠে নামতে হবে। ভাগ্য ভালো যে আমরা নিয়মিত টেস্ট খেলি। আমি ১০০টার ওপর টেস্ট খেলেছি। তাই কীভাবে পরদিন মাঠে নামতে হয় সেটা আমার জানা আছে।’

৩৫ বছর বয়স পূর্ণ হতে যাওয়া কোহলির ধকল হয়তো আগামী ম্যাচে কমতে পারে। শোনা যাচ্ছে, রাহুলের জায়গায় টিম ম্যানেজমেন্টের বিবেচনায় আছেন সূর্যকুমার যাদব। বিশ্বকাপ স্কোয়াডে থাকা এই ব্যাটার কেমন করতে পারেন তার একটা পরীক্ষাও হয়ে যাবে।

টাইগারদের বিপক্ষে কোহলির জায়গা নিতে পারেন শ্রেয়াস আইয়ার। চোটের কারণে তিনিও দুই ম্যাচ একাদশের বাইরে ছিলেন। এমনকি পেস অলরাউন্ডার হার্দিক পান্ডিয়াকেও নিয়ে বেশি ঝুঁকি নিতে চায় না দলটি। তিনি বিশ্রামে গেলে খেলবেন শার্দুল ঠাকুর। বুমরাহ’র জায়গায় ফিরতে পারেন মোহাম্মদ শামি।

অন্যদিকে, এশিয়া কাপে বাজে সময় পার করছে সাকিব আল হাসানের দল। তাই সুপার ফোরের শেষ ম্যাচ জিতে তারা নিশ্চয়ই সান্ত্বনা পেতে চাইবে। আগামী ১৫ সেপ্টেম্বর ভারতের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে এবারের এশিয়া কাপ মিশন শেষ হবে টাইগারদের। এর আগে চোট জর্জরিত স্কোয়াড বাংলাদেশ এশিয়ানদের শ্রেষ্ঠত্বের আসরে খেলতে গিয়েছিল।