images 1

ব্রেকিং নিউজঃ বিশ্বচ্যাম্পিয়নদের সিরিজ হারিয়ে ইতিহাস গড়ল বাংলাদেশ

বিশ্বচ্যাম্পিয়ন ইংল্যান্ডকে হারিয়ে ইতিহাস গড়েছে বাংলাদেশ। সিরিজের দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি ম্যাচে ৪ উইকেটের জয় তুলে নিয়ে প্রথমবারের মতো ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ নিজেদের করে নিয়েছে টাইগাররা। সফরকারীদের দেয়া ১১৮ রানের জবাবে ব্যাট করতে নেমে ৭ বল বাকি থাকতেই লক্ষ্যে পৌঁছে যায় বাংলাদেশ।

এর আগে মিরপুর শেরে বাংলায় আজ রবিবার টস জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশ। তাসকিন আর মুস্তাফিজ দুই প্রান্ত থেকে শুরু করেন আক্রমণ। তৃতীয় ওভারেই ব্রেক থ্রু দেন তাসকিন। তার বলে হাসান মাহমুদের তালুবন্দি হয়ে ফিরেন ডেভিড মালান (৫)। দলীয় ১৬ রানে প্রথম উইকেট হারায় ইংল্যান্ড। ব্যাটিং লাইনআপ বদলে মঈন আলীকে নামানো হয় তিনে। পাওয়ারপ্লেতে আসে ৫০ রান। ৭ম ওভারে বোলিংয়ে আসেন অধিনায়ক সাকিব। তৃতীয় বলেই সাফল্য। অসাধারণ ফিরতি ক্যাচে ১৯ বলে ২৫ রান করা ফিল সল্টকে ফেরত পাঠান বাংলাদেশ অধিনায়ক। এরপর মঞ্চে আসেন হাসান মাহমুদ। এই তরুণ পেসার আজও বোল্ড করে দেন ইংলিশ অধিনায়ক জস বাটলারকে (৪)।

মঈন আলীকে তিনে নামিয়ে লাভ হয়নি ইংলিশদের। ১৭ বলে ১৫ রান করা অল-রাউন্ডারকে ফেরান একাদশে সুযোগ পাওয়া মেহেদি মিরাজ। ৯ ওভারে মাত্র ৫৭ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে প্রবল চাপে পড়ে যায় ইংল্যান্ড। রান রেট নেমে যায় ছয়ের নিচে। বিপর্যয়ের শেষ হয়নি আর। ১৫তম ওভারে এসে জোড়া আঘাত হানেন মিরাজ। ওভারের দ্বিতীয় আর চতুর্থ বলে ফিরিয়ে দেন স্যাম কারেন (১২) আর ক্রিস ওকসকে (০)। দুজনকেই স্টাম্পড করে বড় কৃতিত্বের ভাগীদার উইকেটকিপার লিটন দাস। ৯১ রানে নেই ৬ উইকেট! তার চতুর্থ শিকার ক্রিস জর্ডান (৩)। শেষ ওভারে বেন ডাকেটকে (২৮) ফেরান মুস্তাফিজুর রহমান। অনেকটা দৌঁড়ে এসে অসাধারণ ডাইভে ক্যাচ নেন নাজমুল হোসেন শান্ত। চতুর্থ বলে রান-আউট হয়ে যান রেহান আহমেদ (১১)। শেষ বলে জোফরা আর্চার (০) রান আউট হলে ১১৭ রানে অল-আউট হয় ইংল্যান্ড।