অঙ্গভঙ্গি নিয়ে সমালোচনা; কড়া জবাব দিলেন মার্টিনেজ

কাতারে আর্জেন্টিনার স্বপ্নপূরণের অন্যতম নায়ক এমিলিয়ানো মার্টিনেজ। যিনি আসরের সেরা গোলরক্ষক ‘গোল্ডেন গ্লাভ’ বিজয়ীও হয়েছেন। কিন্তু হঠাৎই নেতিবাচক খবরের শিরোনামে মার্টিনেজ। পুরস্কার গ্রহণের পর তার অশালীন অঙ্গভঙ্গি নেট দুনিয়ায় ভাইরাল হয়। ১২০ মিনিটের রুদ্ধশ্বাস খেলা শেষে টাইব্রেকারে গড়ায় ম্যাচ। সেখানে গোলকিপারদের চ্যালেঞ্চ যেন একটু বেশিই।

স্নায়ুচাপে ভুগে অনেক বাঘা বাঘা গোলকিপারই এই সময়ে মনোসংযোগ ঠিক রাখতে পারেন না। কিন্তু এমিলিয়ানো মার্টিনেজ যেন অন্য ধাতুতে গড়া। ফাইনালের মতো লড়াইয়ে মাথা ঠাণ্ডা রেখে আর্জেন্টিনাকে বিশ্বকাপ এনে দিয়েছেন তিনি। পেনাল্টি ঠেকিয়ে নাচতেও দেখা যায় তাকে। তবে ‘গোল্ডেন গ্লাভ’ হাতে যেই অঙ্গভঙ্গি দেখিয়েছেন তা রীতিমত অশালীনই।

সেই সময় তার কাছাকাছি দাঁড়িয়ে ছিলেন কাতারের কর্মকর্তারা। পরে এই পুরস্কারকে তার মাথার ওপরে তুলে নাড়াতে দেখা যায়। যা নেট দুনিয়ায় ভাইরাল হয়ে পড়ে। সমালোচনার মুখে পড়েন আর্জেন্টাইন গোলরক্ষক। তাতে অবশ্য মার্টিনেজের থোড়াই কেয়ার। এমন অঙ্গভঙ্গির পেছনে রহস্য খোলাসা করে মার্টিনেজ বলেন, ‘আমি এমনটা করেছি, কারণ ফরাসিরা আমাকে অবজ্ঞা করেছে। আমি সুশীলতার ধার ধারি না।’

এদিকে পুরো আসরেই আর্জেন্টিনার গোলবার বিশ্বস্ততার সাথে সামলেছেন মার্টিনেজ। টাইব্রেকার ঠেকানো, পেনাল্টি সেভ, শেষ মূহুর্তে ম্যাচের মোড় ঘুরিয়ে দেওয়া এসব নানান কাহিনীতে আলবাসিলেস্তাদের ফাইনালে তোলে মার্টিনেজ। শেষ পর্যন্ত ফাইনালেও হিরো তিনি। মেসির পর যার নামটি বারবার উচ্চারিত হচ্ছে তিনি হলেন মার্টিনেজ।

x

You May Also Like