মাঠে নামার আগেই আর্জেন্টিনাকে হুমকি দিয়ে রাখলেন ক্রোশিয়া

কাতার বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে ব্রাজিলকে টাইব্রেকারে হারিয়েছে ক্রোয়েশিয়া। নেইমারকে কান্নায় ভাসিয়ে সেমিফাইনালে উঠেছেন মদরিচ–পেরিসিচ–পেতকোভিচরা। শেষ চারে তাঁদের প্রতিপক্ষ আর্জেন্টিনা। এবার লিওনেল মেসিকেও কান্নায় ভাসিয়ে সেমিফাইনাল থেকেই বাড়ি পাঠাতে চান ক্রোয়াটরা।

আর্জেন্টিনাকে বিদায় করতে হলে লিওনেল মেসিকে আটকাতে হবে ক্রোয়েশিয়াকে। সেটা কি তারা করতে পারবে বা মেসিকে আটকাতে কী পরিকল্পনা আছে তাদের? গতকাল সংবাদমাধ্যমকে দলটির ফরোয়ার্ড ব্রুনো পেতকোভিচ বলেছেন, মেসিকে নিয়ে এখনো কোনো পরিকল্পনা করেনি তাঁর দল। আর শুধু মেসিকে নয়, ক্রোয়েশিয়া আসলে থামিয়ে দিতে চায় পুরো আর্জেন্টিনা দলকেই।

কোয়ার্টার ফাইনালে ব্রাজিল–ক্রোয়েশিয়া ম্যাচে নির্ধারিত ৯০ মিনিটে কোনো গোল হয়নি। অতিরিক্ত সময়ে গড়ানো ম্যাচে ১০৫ মিনিটে নেইমারের অনিন্দ্যসুন্দর এক গোলে এগিয়ে গিয়েছিল ব্রাজিল। ১১৭ মিনিটে সেই গোল শোধ দেন বদলি হিসেবে নামা পেতকোভিচ। এরপর টাইব্রেকারে ব্রাজিলকে ৪–২ ব্যবধানে হারায় ক্রোয়েশিয়া।

সেই ম্যাচে ক্রোয়েশিয়াকে সমতায় ফেরানো পেতকোভিচ গতকাল সংবাদমাধ্যমে মেসিকে থামানো নিয়ে কথা বলেছেন। তাঁর কথা, ‘মেসিকে থামানোর বিষয়ে এখনো আমরা নির্দিষ্ট কোনো পরিকল্পনা করিনি। সাধারণত আমরা নির্দিষ্ট কোনো খেলোয়াড়কে থামানোর পরিকল্পনা করি না। আমরা পুরো দল নিয়ে পরিকল্পনা সাজাই।’

পেতকোভিচ এখানেই থামেননি। এরপর তিনি বলেছেন, ‘আমরা খেলোয়াড় ধরে ম্যান–মার্কিং করে নয়, তাদের পুরো দলটাকেই আটকাতে চাই। আর্জেন্টিনা দলে মেসি একা খেলে না, তাদের অনেক অসাধারণ খেলোয়াড় আছে। পুরো আর্জেন্টিনা দলকেই থামাতে হবে আমাদের।’

উল্লেখ্য, আজ দিবাগত রাত ১ টায় কাতার বিশ্বকাপের প্রথম সেমিফাইনালে মুখোমুখি হবে আর্জেন্টিনা ও ক্রোয়েশিয়া।

x

You May Also Like