মাঠে নামছে আর্জেন্টিনা-ক্রোয়েশিয়া; দেখেনিন সময় ও পরিসংখ্যান

দীর্ঘ চার বছর আগে সবশেষ দেখা আর্জেন্টিনা ও ক্রোয়েশিয়ার। রাশিয়া বিশ্বকাপে লাতিন আমেরিকানদের বিপক্ষে দারুণ এক জয়ে মুখোমুখি লড়াইয়ে সমতা টেনেছিল ক্রোয়াটরা। কাতারে আবার সাক্ষাৎ হচ্ছে দুই দলের।

সেমি-ফাইনালে আগামী মঙ্গলবার মুখোমুখি হবে আর্জেন্টিনা ও ক্রোয়েশিয়া। লুসাইল স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় রাত ১টায় শুরু ম্যাচটি।

বিশ্বকাপ ও সব মিলিয়ে মুখোমুখি লড়াইয়ে এগিয়ে নেই দুই দলের কেউ। ফাইনালে ওঠার মঞ্চ হবে সমতা ভাঙার লড়াইও।

হাইভোল্টেজ ম্যাচটির আগে আর্জেন্টিনা ও ক্রোয়েশিয়ার আরও কিছু পরিসংখ্যান দেখে নেওয়া যাক।

* এ নিয়ে টানা দ্বিতীয়বার বিশ্বকাপের সেমি-ফাইনালে খেলছে ক্রোয়েশিয়া। ২০১৮ সালে শেষ চারে ইংল্যান্ডকে ২-১ গোলে হারিয়ে ফাইনালে ওঠে তারা, যা দলটির সর্বোচ্চ সাফল্য। শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচে ফ্রান্সের কাছে ৪-২ গোলে হেরে স্বপ্ন ভঙ্গ হয় তাদের।

* বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত চারবার টাইব্রেকারের পরীক্ষা দিয়ে শতভাগ সফল ক্রোয়েশিয়া। গত আসরে শেষ ষোলোয় ডেনমার্ক ও কোয়ার্টার-ফাইনালে রাশিয়াকে পেনাল্টি শুটআউটে হারায় তারা। এবার নকআউট পর্বের প্রথম ধাপে জাপানের বিপক্ষে ও শেষ আটে ব্রাজিলের বিপক্ষে টাইব্রেকারে জেতে দলটি।

* কোয়ার্টার-ফাইনালে ব্রাজিলের বিপক্ষে সমতা টানা গোলটি করেন ব্রুনো পেতকোভিচ। ম্যাচটিতে ওই একটি শটই লক্ষ্যে রাখতে পেরেছিল ক্রোয়েশিয়া, আর সেটাতেই পেয়ে যায় তারা জালের দেখা।

* ২০০২ সালে ব্রাজিলের পর প্রথম দল হিসেবে টানা দুইবার ফাইনালে খেলার সম্ভাবনা জাগিয়েছে ক্রোয়েশিয়া।

* বিশ্বকাপে নিজেদের সবশেষ ১২ ম্যাচের ১১টিতে অপরাজিত ক্রোয়েশিয়া; একমাত্র হার ফ্রান্সের বিপক্ষে, ২০১৮ বিশ্বকাপের ফাইনালে।

* আর্জেন্টিনা অধিনায়ক লিওনেল মেসির সামনে দ্বিতীয়বার বিশ্বকাপের ফাইনালে খেলার হাতছানি। ২০১৪ সালে জার্মানির বিপক্ষে ১-০ গোলে হেরে হৃদয় ভাঙে লাতিন আমেরিকার দলটির।

* ক্লাব ও জাতীয় দলে সম্ভাব্য সব ট্রফি পেয়েছেন লিওনেল মেসি। কেবল বিশ্বকাপই এখনও জেতা হয়নি আর্জেন্টাইন এই মহাতারকার।

* বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনার হয়ে সবচেয়ে বেশি ১০ গোলের রেকর্ডে গাব্রিয়েল বাতিস্তুতার সঙ্গী এখন লিওনেল মেসি। সিংহাসনে একা বসতে স্রেফ এক গোল চাই মেসির।

* সৌদি আরবের বিপক্ষে হার দিয়ে এবারের বিশ্বকাপে পথচলা শুরু করে আর্জেন্টিনা। এরপর চার ম্যাচে স্রেফ তিন গোল হজম করে ষষ্ঠবারের মতো সেমি-ফাইনালে ওঠে তারা।

* এখন পর্যন্ত দুইবার শিরোপা জিতেছে আর্জেন্টিনা, ১৯৭৮ ও ১৯৮৬ সালে। তিনবার হয়েছে তারা রানার্সআপ।

* বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত দুইবার মুখোমুখি হয়েছে আর্জেন্টিনা ও ক্রোয়েশিয়া। যেখানে একটি করে জয় দুই দলেরই। ১৯৯৮ সালে গ্রুপ পর্বে ১-০ গোলে জেতে লাতিন আমেরিকানরা। গত আসরে গ্রুপ পর্বেই তাদের ৩-০ গোলে হারিয়ে দেয় ক্রোয়েশিয়া।

* আর্জেন্টিনা ও ক্রোয়েশিয়া সব মিলিয়ে পরস্পরের বিপক্ষে খেলেছে পাঁচটি ম্যাচ। যেখানে দুটি করে জয় দল দুটির। আরেকটি ম্যাচ হয়েছে ড্র।

x

You May Also Like