পাকিস্থানের সামনে টিকলো না শ্রীরামের কৌশল!

বাংলাদেশ টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট ইতিহাসের সবচেয়ে খারাপ সময় পার করছে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল। টানা বাজে ফার্মের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে বর্তমান দলের ক্রিকেটাররা। ইতিমধ্যেই বদল করা হয়েছে দলের অধিনায়ক। ছাঁটাই করা হয়েছে দলের একাধিক সিনিয়র ক্রিকেটারকে।

সরিয়ে দেয়া হয়েছে জাতীয় দলের প্রধান কোচ রাসেল ডোমিঙ্গকে। দায়িত্ব দেয়া হয়েছে নতুন টেকনিক্যাল কনসালট্যান্ট শ্রীধরন শ্রীরাম কে। ফিরিয়ে আনা হয়েছে জাতীয় দল থেকে বাদ পড়া ক্রিকেটারদের। কিন্তু কিছুতেই ফল পাচ্ছে না জাতীয় দল।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে নাজমুল হোসেন শান্ত দল পাওয়া নিয়ে আলোচনা তো কম হয়নি। যেখানে বিসিবি যুক্তি হিসেবে দেখিয়েছিল ইমপ্যাক্ট ক্রিকেট বলে। টেকনিক্যাল কনসালট্যান্ট শ্রীধরন শ্রীরামের কাছে শান্তকে ইমপ্যাক্টফুল মনে হয়েছে।

যদিও এখনো পর্যন্ত একাদশে সুযোগ হয়নি তার। বিশ্বকাপের দল ঘোষণা পর শ্রীরামের বক্তব্য ছিল, পারফরমেন্স নয়; ইমপ্যাক্ট চান তিনি। সেই ইমপ্যাক্ট ক্রিকেটাররা কোথায় আজ?

পাকিস্তানের বিপক্ষে আজও ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টের প্রথম ম্যাচে ভালো করতে পারেনি বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানরা। উইকেট বিবেচনায় পাকিস্তানের বিপক্ষে আজকের ম্যাচের টার্গেট ছিল একদম মাঝারি মানের। ‌
কিন্তু ম্যাচে ১২০ বলের খেলায় ৫২টি বল ছিল ডট। ১৬৭ রান তাড়ায় হেরেছে ২১ রানে। তখনও হাতে ছিল ২ উইকেট। শ্রীরাম থেকে শুরু করে ক্রিকেট কর্মকর্তারা যে ‘ইমপ্যাক্ট’ এর কথা বলে এসেছেন, তার ছিঁটেফোটাও দেখা যায়নি কারও মাঝে।
শেষদিকে ইয়াসির আলী ২১ বলে ৪২* করলেও সেটা দলের কোনো কাজে লাগেনি। স্রেফ পরাজের ব্যবধানটাই কমিয়েছে। চার ম্যাচে সুযোগ পেয়ে বরাবরের মত ব্যর্থ সাব্বির রহমান।

তাহলে ইমপ্যাক্ট রাখছে কে? এই ছন্নছাড়া টিম নিয়ে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ খেলা আর না খেলা সমান কথা। যদিও বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন বলেছিলেন, তাদের লক্ষ্য নাকি দুই বছর পরের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ! এবারের আসরে টাইগারদের কী করুণ পরিণতি হবে- তা বলাই বাহুল্য

x

You May Also Like