সব ম্যাচে হারলেও টি২০ বিশ্বকাপ খেলে কত টাকা পাবে বাংলাদেশ

আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের অষ্টম আসরের জন্য প্রাইজমানি ঘোষণা করেছে আইসিসি। যেখানে চ্যাম্পিয়ন দলের জন্য বরাদ্দ করা হয়েছে প্রায় ১৬ লক্ষ মার্কিন ডলার। টাইগাররা যদি এক ম্যাচ নাও জিতে, তাও তারা অন্তত আয় করতে পারবে ৭০ প্রায় লক্ষ টাকা।

দরজায় কড়া নাড়ছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের অষ্টম আসর, যেটা অনুষ্ঠিত হবে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে। এরইমধ্যে প্রতিটি দল নিজেদের স্কোয়াড ঘোষণা করে দিয়েছে, তাতে প্রস্তুতি চলছে শেষ মুহূর্তে। এরমধ্যে বিশ্বকাপের প্রাইজমানি ঘোষণা করে দিয়েছে আইসিসি। যারা চ্যাম্পিয়ন হবে তারা পাবে ১.৬ মিলিয়ন মার্কিন ডলার, যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ১৬ কোটি টাকার মতো।

অন্যদিকে রানারআপ দল পাবে চ্যাম্পিয়ন দলের অর্ধেক অর্থাৎ ৮ লক্ষ ডলার, যা বাংলাদেশী মুদ্রায় প্রায় ৮ কোটি টাকার সমান। সেমি ফাইনালে ওঠা বাকি দুটি দল পাবে চার কোটি টাকা করে, অর্থাৎ আইসিসির পক্ষ থেকে তাদের জন্য বরাদ্দ ৪ লক্ষ ডলার। এদিকে সুপার টুয়েলভে প্রতি ম্যাচে জয়ের জন্যে পাবে ৪০ হাজার ডলার করে অর্থাৎ বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৪০ লক্ষ টাকার সমান।

সুপার টুয়েলভে যারা কোন জয় ছাড়া বাদ পড়বে তারা পাবে ৭০ হাজার ডলার অর্থাৎ প্রায় ৭০ লক্ষ টাকা। এছাড়াও যারা বাছাইপর্ব থেকে বিদায় নেবে তারা পাবে ৪০ হাজার ডলার।

সব মিলিয়ে এবারের আসরে পুরস্কার দেয়া হচ্ছে ৫.৬ মিলিয়ন ডলার, অর্থাৎ বাংলাদেশী মুদ্রায় যার মান দাঁড়ায় ৫৬ কোটি টাকার সমান। জেনে রাখা ভালো ২০২১ সালের ভারত বিশ্বকাপের প্রাইজমানি ছিল এমনই, তবে বাংলাদেশি মুদ্রায় ডলারের মান বৃদ্ধি পাওয়ার কারণে বাংলাদেশি টাকায় এবারের পুরস্কারের অর্থের পরিমাণ বেশি বলেই মনে হচ্ছে। গতবার বাংলাদেশী মুদ্রায় দেয়া হয়েছিল প্রায় ৪৮ কোটি টাকা সেটা এবার মুদ্রাস্ফীতির কারনে বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৮ কোটি, যদিও মূল অর্থে আসেনি একেবারেই কোন পরিবর্তন!

You May Also Like