এ বছর হচ্ছে না বিপিএল

দেশের ঘরোয়া টি-টোয়েন্টির সবচেয়ে বড় আসর বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল) এ বছর হচ্ছে না। জাতীয় দলের খেলোয়াড়দের ব্যস্ত সূচির কারণেই এ বছর বিপিএল আয়োজন করা সম্ভব নয় বলে জানিয়েছেন বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের সদস্য সচিব ইসমাইল হায়দার মল্লিক।

চলতি বছরের নভেম্বর-ডিসেম্বরে বিপিএল আয়োজন করার কথা ছিল। কিন্তু নভেম্বরে পাকিস্তান সফর করবে বাংলাদেশ এবং ডিসেম্বরে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে খেলবে তারা। আগামী বছরের জানুয়ারিতে বিপিএল আয়োজন হতে পারে বলে জানিয়েছে বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিল।

আজ শনিবার সাংবাদিকদের ইসমাইল হায়দার মল্লিক বলেন, ‘জাতীয় দল নভেম্বরে পাকিস্তান সফর করতে পারে। ডিসেম্বরে বাংলাদেশ সফরে আসবে নিউজিল্যান্ড দল। জাতীয় দলের খেলোয়াড় ছাড়া বিপিএল আয়োজন সম্ভব নয়। তাই আগামী জানুয়ারিতে বিপিএল করার পরিকল্পনা আমাদের।’

Advertisements
Advertisements

বিসিবির এই কর্মকর্তা আরও বলেন, ‘নভেম্বর ও ডিসেম্বরে আয়োজনের সুযোগ ছিল। কিন্তু সে সময় আন্তর্জাতিক সিরিজ রয়েছে। এ বছর বিপিএল হবে না, এটি ইতিবাচক বিষয় নয়। আমাদের বলা উচিত, আগামী বছরের জানুয়ারিতে বিপিএলের পরবর্তী আসর অনুষ্ঠিত হবে।’

২০১৮ সালে সর্বশেষ বিপিএল অনুষ্ঠিত হয়েছিল। ২০১৯ সালে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে ফ্র্যাঞ্চাইজিদের বাদ দিয়ে বিশেষ বিপিএল আয়োজন করা হয়েছিল।

ঘরোয়া ক্রিকেটের সূচি এখনো ঠিক হয়নি। এ সম্পর্কে ইসমাইল হায়দার বলেন, ‘ঘরোয়া ক্রিকেটের সূচি ঠিক করতে আমরা দুবার বৈঠক করেছি। আমাদের জাতীয় দল সারা বছর ব্যস্ত থাকবে এবং তাই আমাদের সব বিষয় বিবেচনা করতে হবে। আমাদের ডিপিএল, এনসিএল, বিসিএল ও বিপিএল রয়েছে। প্রাথমিক সিদ্ধান্ত অনুযায়ী এনসিএল এই মার্চে শুরু হবে। করোনার পর ঘরোয়া ক্রিকেট আবার শুরু করা হবে। আমরা মে মাসে ডিপিএল আয়োজন করব।’

Related Post