স্বামী বিশ্বকাপ জেতালেন ২০১৫ সালে, স্ত্রী জেতালেন ২০২২ সালে

20220403 163753

ক্রীড়া মনস্ক পরিবার সারা বিশ্বে খুঁজলে কম নয়, অহরহ পাওয়া যাবে। প্রতিটি ডিসিপ্লিনেই দুই ভাই, বাবা-ছেলে কিংবা স্বামী-স্ত্রীর খেলার নজির রয়েছে অনেক। কিন্তু একই ডিসিপ্লিনে খেলে স্বামী এবং স্ত্রী নিজের দেশকে বিশ্বকাপ জিতিয়েছেন,

এমন নজির সম্ভবত আর নেই, যা রয়েছে কেবলমাত্র অস্ট্রেলিয়ান জুটি মিচেল স্টার্ক এবং অ্যালিসা হিলির। দু’জনই ক্রিকেটার। দু’জনই বিশ্বমানের ক্রিকেটার। ২০১৫ সালে অস্ট্রেলিয়া যে সর্বশেষ ওয়ানডে বিশ্বকাপ জিতেছিল, সেই বিশ্বকাপে ম্যান অব দ্য সিরিজ হয়েছিলেন মিচেল স্টার্ক। দুর্দান্ত বোলিং দিয়ে অসিদের পঞ্চমবারেরমত বিশ্বকাপ জিতিয়েছিলেন তিনি। সর্বোচ্চ ২২টি উইকেট নিয়েছিলেন তিনি।

অপরদিকে ২০২২ নারী বিশ্বকাপের ম্যান অব দ্য সিরিজ হলেন মিচেল স্টার্কের স্ত্রী অ্যালিসা হিলি। পুরো টুর্নামেন্টে তিনি করেছেন সর্বোচ্চ ৫০৯ রান। তবে একটি ক্ষেত্রে স্বামীকেও ছাড়িয়ে গেলেন স্ত্রী হিলি। তিনি ম্যান অব দ্য সিরিজের সঙ্গে হলেন ম্যান অব দ্য ফাইনালও। কিন্তু স্বামী মিচেল স্টার্ক ম্যান অব দ্য সিরিজ হলেও ম্যান অব দ্য ফাইনাল হতে পারেননি। অ্যালিসা হিলি একজন ওপেনার। ব্যাট হাতে ফাইনালে যেন তিনি একাই ইংল্যান্ডকে বিধ্বস্ত করে ছাড়লেন।

১৭০ রানের বিশাল এক ইনিংস খেলেন তিনি। ১৩৮ বল খেলে তিনি বাউন্ডারির মার মারেন ২৬টি। এ নিয়ে টানা দুটি সেঞ্চুরি করলেন তিনি। সেমিফাইনালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ১২৯ রান করেন তিনি। স্বামী মিচেল স্টার্ক দলের এক নম্বর স্ট্রাইক বোলার। এখনও তিনি একই ভূমিকায় খেলে যাচ্ছেন। অ্যালিসা হিলিও দলের মূল ব্যাটার। একই ভূমিকায় অনেক আগে থেকে এখনও খেলে যাচ্ছেন। ক্রাইস্টচার্চের হ্যাগলি ওভালে আজ যখন ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ফাইনাল খেলতে নেমেছিল অস্ট্রেলিয়া,

তখন ভিআইপি বক্সে উপস্থিত ছিলেন স্বামী মিচেল স্টার্কও। মিলিয়ন ডলারের আইপিএলের চেয়ে পরিবার যে আরও বেশি গুরুত্বপূর্ণ, মিচেল স্টার্ক সেটাই দেখিয়ে দিলেন। গ্যালারিতে দাঁড়িয়ে, হাত তালি দিয়ে স্ত্রীর ব্যাটিংকে অভিনন্দিত করেছেন। স্ত্রীও বারবার গ্যালারির দিকে তাকিয়ে স্বামীর উপস্থিতিকে নিজের জন্য অনুপ্রেরণা হিসেবে নিয়েছেন। অ্যালিসা হিলির ১৭০ রানের ওপর ভর করে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ দাঁড়ায় ৩৫৬ রান।

জবাব দিতে নেমে ইংল্যান্ড অলআউট হয়ে যায় ২৮৫ রানে। ৭১ রানের জয়ে সপ্তমবারের মত নারী ক্রিকেট বিশ্বকাপের শিরোপা জিতে নেয় অস্ট্রেলিয়া।

You May Also Like