w,w,w,w,w,w,w,w আট বলে আট উইকেট তুলে তাক লাগালেন এই ক্রিকেটার!

পরপর তিন বলে তিন উইকেট বা চার বলে চার উইকেট আধুনিক ক্রিকেটে আকছার দেখা যায়। কিন্তু তাই বলে আট বলে আট উইকেট!

ভারতের কোনও ধরনের ক্রিকেটেই এখনও এই ধরনের রেকর্ড শোনা যায়নি। কিন্তু হুগলির ভদ্রেশ্বরের ছেলে দুর্গেশ দুবে সেই কাজই করে দেখিয়েছেন। হুগলি জেলার সিনিয়র নকআউট ক্রিকেটের কোয়ার্টার ফাইনালে চুঁচুড়া টাউন ক্লাবের এই ক্রিকেটার আট বলে আট উইকেট নিয়ে হইচই ফেলে দিয়েছেন। তবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট বা বোর্ডের রাজ্যভিত্তিক ক্রিকেট ম্যাচে না হওয়ায় তা প্রচারে আসেনি।

দুর্গেশ সেই বলটি রেখে দিয়েছেন স্মারক হিসেবে। ক্লাবের তরফেও একটি বিশেষ টুপি দেওয়া হয়েছে তাঁকে। কলকাতার ভবানীপুর ক্লাবে খেলেন দুর্গেশ। জানা গিয়েছে, এই ক্রিকেটারের উঠে আসার পিছনে রয়েছেন বাংলার ক্রিকেটার অর্ণব নন্দী। এক দিন টেনিস বলে দুর্গেশের বোলিং দেখে তিনিই পেশাদার ক্রিকেট খেলার কথা বলেছিলেন দুর্গেশকে। তার পর থেকেই চামড়ার বলে অনুশীলন শুরু দুর্গেশের।
কিন্তু ক্রিকেট খেলার পথ মসৃণ ছিল না। দরিদ্র পরিবারের সন্তান হওয়ায় প্রতি পদে এসেছিল বাধা। এক সময় ক্রিকেটার হওয়ার স্বপ্নে ইতি টেনেছিলেন। ইলেকট্রিশিয়ানের কাজ শিখতেন। ইন্দিরা গান্ধী মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ে স্নাতক স্তরের পড়াশোনাও চলত।

অর্ণবই এ সময় তাঁকে আর্থিক সাহায্য করে ক্রিকেটের মূলস্রোতে ফিরিয়ে আনেন। ২০১৬-১৭ মরসুম ইস্টবেঙ্গলের নেট বোলার ছিলেন। পরে সেই দলের হয়েও খেলেছেন। এর পর ভবানীপুরের সঙ্গে চুক্তি। বেশ কিছু ম্যাচে রিজার্ভ বেঞ্চে বসে থাকার পর কোচ আব্দুল মোনায়েম তাঁকে খেলান। সেখান থেকেই তরতর করে উত্থান।

আপাতত তাঁর স্বপ্ন আরও উন্নতি করা। অর্থকষ্ট হলেও ক্রিকেট আর ছাড়তে চান না দুর্গেশ।

You May Also Like