তিন বিদেশি ক্রিকেটারকে দলে নিতে মরিয়া হয়ে উঠেছে কলকাতা নাইট রাইডার্স

কলকাতা নাইট রাইডার্স এবছর নিলামের আগে ধরে রেখেছে বেঙ্কটেশ আইয়ার, বরুণ চক্রবর্তী, আন্দ্রে রাসেল ও সুনীল নারিনকে। তারা শুভমন গিলকে রিটেন করার কথা ভাবেনি। গিলকে নিলামের আগেই দলে নিয়েছে গুজরাত টাইটানস। সুতরাং আইপিএল নিলাম থেকে সবার আগে বেঙ্কটেশ আইয়ারের ওপেনিং পার্টনার বেছে নিতে হবে কলকাতা নাইট রাইডার্সকে। দেখে নেওয়া যাক সম্ভাব্য কোন তিন বিদেশি ক্রিকেটারকে ওপেনার হিসেবে দলে নেওয়ার কথা ভাবতে পারে কেকেআর।

জনি বেয়ারস্টো (বেস প্রাইস ১ কোটি ৫০ লক্ষ টাকা): ইংল্যান্ডের উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যানের ঠান্ডা মাথার খুনে মেজাজের সঙ্গে ইতিমধ্যেই পরিচিত আইপিএল। কখনই বাড়তি ঝুঁকি নেন না, তবে অত্যন্ত নির্ভরযোগ্য ব্যাটসম্যান হিসেবে পিরিচিতি তৈরি করেছেন নিজের। সানরাইজার্স হায়দরাবাদ তাঁকে রিটেন করেনি। আসন্ন আইপিএল নিলামে বেয়ারস্টোকে দলে নেওয়ার আগ্রহ দেখাতে পারে কেকেআর। বেয়ারস্টো এখনও পর্যন্ত ২৮টি আইপিএল ম্যাচে ১০৩৮ রান সংগ্রহ করেছেন। ১টি সেঞ্চুরি ও ৭টি হাফ-সেঞ্চুরি রয়েছে তাঁর। স্ট্রাইক-রেট ১৪২.১৯।

এডেন মার্করাম (বেস প্রাইস ১ কোটি টাকা): দক্ষিণ আফ্রিকার মার্করাম জাতীয় দলের হয়ে নিয়মিত ওপেন না করলেও টপ-মিলড অর্ডারের যে কোনও জায়গায় ব্যাট করতে পারেন। বর্তমান সময়ের অন্যতম নির্ভরোগ্য টি-২০ ব্যাটসম্যান তিনি। তাঁর বোলিংও নিতান্ত মন্দ নয়। স্পিনার হলেও প্রায়শই নতুন বলে দৌড় শুরু করতে দেখা যায় তাঁকে। গত মরশুমে পঞ্জাবের হয়ে ৬টি ম্যাচে মাঠে নামেন তিনি। সাকুল্যে ১৪৬ রান সংগ্রহ করেন। কলকাতা টার্গেট করতে পারে প্রোটিয়া তারকাকে।

কুইন্টন ডি’কক (বেস প্রাইস ২ কোটি): শুধু টি-২০ ক্রিকেটে নয়, সব ফর্ম্যাটেই অত্যন্ত নির্ভরযোগ্য ব্যাটসম্যান কুইন্টন ডি’কক। একই সঙ্গে উইকেটকিপার ও ওপেনারের সমস্যা সমাধান করতে ডি’ককের জুড়ি মেলা ভার। মুম্বই ইন্ডিয়ান্স তাঁকে ধরে না রাখলেও ডি’কককে ফের দলে নেওয়ার জন্য ঝাঁপাতে পারে তারা। তবে কেকেআরও লড়াই চালাতে পারে প্রোটিয়া তারকার জন্য। আইপিএলের ৭৭টি ম্যাচে তাঁর ব্যক্তিগত সংগ্রহ সাকুল্যে ২২৫৬ রান।

You May Also Like

About the Author: