ব্রেকিং নিউজঃ ৬,৬,৪,৪,৬ বিধ্বংসী ব্যাটিংয়ে সেঞ্চুরি তুলে নিলেন তামিম দেখেনিন রানের পাহাড়

২৩তম জাতীয় ক্রিকেট লিগে জ্বলে উঠেছেন তরুণ ব্যাটসম্যান তানজিদ হাসান তামিম। বয়সের ভিত্তিতে ক্রিকেটে বিশ্বকাপজয়ী দলের অন্যতম সদস্য সেঞ্চুরি করে কিছুক্ষণ আগে জাতীয় দলে আসার ঘোষণা দেন।

চলমান জাতীয় ক্রিকেট লিগের চতুর্থ রাউন্ডের তৃতীয় দিনের খেলায় আগের দিন ৬ উইকেট হারিয়ে ৩৫৩ রান নিয়ে দিন শুরু করা ঢাকা মেট্রো সবকয়টি উইকেট হারিয়ে নিজেদের প্রথম ইনিংসে তারা থামে ৩৯৮ রানের বড় পুঁজি নিয়ে।
অলআউট হবার আগে ঢাকা মেট্রোর জার্সিতে তৃতীয় দিনে সাজঘরে ফিরে যাবার আগে আমিনুল ইসলাম বিপ্লব খেলেন ৮২ রানের ইনিংস। শেষের দিকে এসে আবু হায়দার রনির ব্যাট থেকেও এসেছিল ৫৯ রান।

এদিকে প্রথম ইনিংসে ২৩২ রান করা রাজশাহী তৃতীয় দিনে নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংসে ওপেনিং জুটিতে খুব বেশি সুবিধাজনক অবস্থান গড়তে পারেনি। মাত্র ৪১ রানের জুটি বিচ্ছিন্ন হয় তানজিদ হাসান তামিমকে ক্রিজে রেখে অপর ওপেনার অভিষেক মিত্র ব্যক্তিগত ১১ রানে ফিরে গেলে।

তবে তিন নম্বরে নামা আরেক অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান জুনায়েদ সিদ্দিকিকে সাথে নিয়ে বড় জুটি গড়েন তানজিদ হাসান তামিম। এই দুই ব্যাটসম্যান মিলে ১৬২ রানের জুটি গড়ে দলের স্কোর বড় করতে থাকেন এই জুটি অবশ্য বিচ্ছিন্ন হয় আবু হায়দার রনির বলে আমিনুল ইসলাম বিপ্লবের হাতে ক্যাচ দিয়ে তামিম সাজঘরে ফিরে গেলে। তরুণ এই ওপেনারের ব্যাট থেকে দ্বিতীয় ইনিংসে এসেছে ১৪৫ রানের ঝলমলে ইনিংস। ১৭১ বল মোকাবেলায় ১৫টি চার এবং ২টি ছক্কার সাহায্যে ১৪৫ রানের এই ইনিংস খেলেন তামিম।

তামিম সাজঘরে ফিরে গেলে দিনের বাকি সময় থিতু ছিলেন জুনায়েদ সিদ্দিকি। ১৯৪ বল মোকাবেলায় ৫৯ রান নিয়ে তৃতীয় দিন শেষে অপরাজিত রয়েছেন বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান। তৃতীয় দিন শেষে রাজশাহী লিড নিয়েছে ৭৫ রানের। জুনায়েদ সিদ্দিকির সাথে অপর অপরাজিত ব্যাটসম্যান হলেন রকিবুল হাসান।

সংশ্লিষ্ট খবর