নতুন শোয়েব আখতারকে পেয়ে গেছে পাকিস্তান!

resize 16355234311352011728p38

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রথম দুই ম্যাচেই জয় পেয়েছে পাকিস্তান। বাবর আজমদের জয়ের পেছনে বড় ভূমিকা রেখেছেন বোলাররা। বিশেষ করে দলের তরুণ পেসারদের আগুনে গতি নজর কেড়েছে সবার। দুই ম্যাচে ৫ উইকেট নিয়েছেন ফাস্ট বোলার হারিস রউফ।
টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে রউফের বলের গতি দেখে মুগ্ধ অস্ট্রেলিয়ার সাবেক ক্রিকেটার ব্র্যাড হগ।

GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht

হারিসকে প্রথম দেখার স্মৃতিও ভাগ করেছেন হগ। বললেন, হারিসকে প্রথমবার দেখেই তাঁর ব্রেট লি, শোয়েব আখতারদের কথা মনে পড়ছিল!

হারিস ভারতের বিপক্ষে ৪ ওভার বল করে ২৫ রানে পেয়েছিলেন ১ উইকেট। এরপর নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে করেছেন আগুনে বোলিং। ওই ম্যাচে পাকিস্তানের ৫ উইকেটে জয়ের পেছনে বড় অবদান ছিল হারিসের।

GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht

৪ ওভারে ২২ রান দিয়ে তুলে নেন নিউজিল্যান্ডের ৪ উইকেট। সেদিন ম্যাচসেরার পুরস্কারও জেতেন হারিস। সাবেক অসি স্পিনার হগের কণ্ঠে তাই শুধুই হারিসের প্রশংসা, ‘খুব অল্প সময়ের মধ্যেই হারিস হয়ে উঠেছে অসাধারণ এক বোলার। আবুধাবিতে আমি ২০০৯ সালে প্রথমবার ওকে দেখেছিলাম। সেবার লাহোর কালান্দার্সের হয়ে হারিস টি-টোয়েন্টি খেলেছিল।

GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht

আমি সেখানে প্রথমবার শাহিন আফ্রিদিকেও দেখেছিলাম।’
যে গতিতে বল করেন হারিস, সেটা দেখে মুগ্ধ হগের যেন ব্রেট লি আর শোয়েব আখতারের কথা মনে পড়ে গিয়েছিল, ‘ওকে (হারিস) যখন আমি প্রথম দেখি, মনে হয়েছিল, আমার দেখা অন্যতম সেরা গতিময় বোলার সে।

GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht

ও যখন বল করছিল, আমার নিজের কাছে মনে হচ্ছিল যেন ব্রেট লি আর শোয়েব আখতার আবারও ফিরে এসেছে।’ ওই সময় লাহোর কালান্দার্স দলের কর্মকর্তারা হগকে জানিয়েছিলেন, হারিস নাকি কয়েক বছর ধরেই শুধু লাল বলের ক্রিকেট খেলেছেন।
হগ দাবি করেন, ওই সময় এমন কথা শোনার পর তাঁর এটা বিশ্বাসই হয়নি।

GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht

নিজের ইউটিউব চ্যানেলে হগ বললেন, ‘আমি লাহোর কালান্দার্সের কয়েকজন কর্মকর্তাকে জিজ্ঞেস করেছিলাম, ওরা আমাকে বলেছিল যে আগের দু-তিন বছরে সে শুধুই লাল বলের ক্রিকেট খেলেছে। আমি বিশ্বাসই করতে পারিনি।
কারণ, আমার কাছে এটা মনে হয়েছে অসম্ভব।’ বিশ্বকাপের মতো এমন বড় আসরে হারিসের এমন অসাধারণ পারফরম্যান্সে মুগ্ধ হগ,

GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht

‘বিশ্বকাপের শুরুর দিকে এবং ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে পিচ কেমন আচরণ করেছে, সেটা আমি দেখেছি। তাই আমার মনে হয়নি হারিস এখানে সর্বোচ্চ পর্যায়ে এসে ভালো কিছু করতে পারবে। কিন্তু সে এই পরিবেশে মানিয়ে নিয়েছে।’

হারিসের নিজের চেষ্টাকেও সাধুবাদ জানিয়েছেন হগ, ‘সে (হারিস) জানে সে এই পর্যায়ে নতুন। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে খেলার বেশি অভিজ্ঞতা বা জ্ঞান নেই ওর। সে কারণে সে মাঠে সতীর্থদের কথা শুনেছে।

GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht
GLeZpht

বাবর আজম, হাফিজ, শোয়েব মালিকের মতো অভিজ্ঞ খেলোয়াড়দের সঙ্গে কথা বলেই চাপের মুখে কেমন করে বল করতে হয়, সেটা জেনে নিচ্ছে। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে এভাবেই সে ভালো করেছে। পরিবেশের সঙ্গে তাকে মানিয়ে নিতে হবে এবং সে সেটা মানিয়ে নিচ্ছেও।’

You May Also Like