শক্তিশালী মালদ্বীপের বিপক্ষে মাঠে নামছে বাংলাদেশ,দেখেনিন সময়সূচি

প্রথম দুই ম্যাচে ষোলআনা সফল হয়েছে বাংলাদেশ। মালদ্বীপে যাওয়ার আগে জাতীয় দলের অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়া বলেন, শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে আমাদের প্রথম ম্যাচ জিততে হবে। আর ভারতের বিপক্ষে দ্বিতীয় ম্যাচ না হারাই ভালো। ‘

মালদ্বীপে চলমান সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে প্রথম দুই ম্যাচের হিসেব মেলানোর পর এবার স্বাগতিকদের মুখোমুখি বাংলাদেশ। দীর্ঘদিন পর সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনাল খেলার সম্ভাবনা বাঁচিয়ে রাখতে মালদ্বীপকে হারানোর কোনো বিকল্প নেই জামাল-ইয়াসিনদের।

আশির দশক হলে সমর্থকরা বাজি ধরতো বাংলাদেশের পক্ষে। ম্যাচের ফল নয়, বাজিটা হতো গোলের সংখ্যা নিয়ে-কত ব্যবধানে জিতবে বাংলাদেশ! দিন বদলেছে, বদলেছে মালদ্বীপের ফুটবল।

দুই দেশের প্রথম সাক্ষাতে বাংলাদেশ জিতেছিল ৫-০ গোলে, সর্বশেষ সাক্ষাতে উল্টো ৫-০ গোলে জিতেছে মালদ্বীপ। এই পরিসংখ্যানই বলে দিচ্ছে, ৩৭ বছরে দুই দেশের ফুটবল হেঁটেছে দুই পথে।

২০০৩ সালে প্রথম এবং শেষবার সাফ জিতেছে বাংলাদেশ। ওই ফাইনালে মালদ্বীপকে ৫-৩ গোলে টাইব্রেকারে হারিয়েছিল তারা। এর পর ৩ বার মুখোমুখি হয়ে তিনটিতেই হেরেছে লাল-সবুজ জার্সিধারীরা।

২০১৬ সালে মালেতে একটি ফিফা প্রীতি ম্যাচে বাংলাদেশের জালে গুনে গুনে ৫ গোল দিয়ে ৩৭ বছর আগের প্রতিশোধ নিয়েছিল মালদ্বীপ। বাংলাদেশের বিপক্ষে এটাই মালদ্বীপের সবচেয়ে বড় ব্যবধানে জয়। বাংলাদেশের বড় জয় ১৯৮৫ সালে ঢাকা সাফ গেমসে ৮-০ গোলে।

মালদ্বীপে চলমান সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে অবশ্য দুই দলের শুরুটা হয়েছে দুইরকম। বাংলাদেশ প্রথম দুই ম্যাচে একটি জিতে ও একটি ড্র করে ৪ পয়েন্ট নিয়ে আছে দ্বিতীয় স্থানে। মালদ্বীপ একটি ম্যাচ খেলে হেরেছে নেপালের কাছে।

এ ম্যাচটা বাংলাদেশের জন্য যতটা গুরুত্বপূর্ণ তার চেয়ে বেশি মালদ্বীপের জন্য। নেপালের কাছে হার দিয়ে ঘরের মাঠের টুর্নামেন্ট শুরু করা দেশটিকে ফাইনালে ওঠার সম্ভাবনা টিকিয়ে রাখতে বাংলাদেশকে হারানোর বিকল্প নেই। বাংলাদেশও চাইবে এই ম্যাচ জিতে ফাইনালের টিকিট প্রায় নিশ্চিত করতে।

দুই দেশের প্রথম তিন ম্যাচে বাংলাদেশ মালদ্বীপের জালে দিয়েছিল ১৩ গোল। সেই মালদ্বীপ শেষ তিন ম্যাচে বাংলাদেশের জালে দিয়েছে ১১ গোল। বোঝাই যাচ্ছে-এখন ফেবারিট মালদ্বীপই।

বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ ও মালদ্বীপের ম্যাচটি শুরু হবে রাত ১০টায়। বিকেল ৫টায় দিনের প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি হবে ভারত ও শ্রীলঙ্কা। এখনো জয় না পাওয়া এই দুই দলের ম্যাচের ফলও কিছুটা আভাস দেবে ফাইনাল খেলার সম্ভাবনায় এগিয়ে থাকবে কারা।

You May Also Like

About the Author: